• বুধবার   ০১ ডিসেম্বর ২০২১ ||

  • অগ্রাহায়ণ ১৭ ১৪২৮

  • || ২৪ রবিউস সানি ১৪৪৩

সর্বশেষ:
রাস্তায় নেমে গাড়ি ভাঙচুর ছাত্রদের কাজ নয়: প্রধানমন্ত্রী ‘পরিবেশবান্ধব উপায়ে সাগরের সম্পদ ব্যবহার করবে বাংলাদেশ’ সব মানুষের ডিজিটাল নিরাপত্তার জন্যই আইন: তথ্যমন্ত্রী জানাজা শেষ করেই পাকিস্তানি বাহিনীকে ধাওয়া করি দেশে আসতে প্রবাসীদের জন্য নতুন নির্দেশনা

তবে কী মান্নান ভূঁইয়ার পথেই হাঁটছেন মির্জা ফখরুল? 

– লালমনিরহাট বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ১৯ অক্টোবর ২০২১  

এক সময়ে বিএনপির মহাসচিব ছিলেন আব্দুল মান্নান ভূঁইয়া। ২০০১ সালে বিএনপি-জামায়াত জোট ক্ষমতা থাকাকালীন মান্নান ভূঁইয়া হয়ে উঠেন প্রচণ্ড ক্ষমতাবান ব্যক্তি। তাকে তৎকালীন সরকারের তৃতীয় ক্ষমতাধর ব্যক্তি হিসেবেও চিহ্নিত করা হতো। 

আর এ কারণেই খালেদা জিয়া ও তারেক রহমানের পরই নেতাকর্মীরা আব্দুল মান্নান ভূঁইয়াকে ঘিরে রাখতো। বাম ঘরনা থেকে উঠে আসা বিএনপির এ নেতাকে মহাসচিব হিসেবে সবাই অত্যন্ত সফল ভাবতেন। কিন্তু সেই আব্দুল মান্নান ভূঁইয়া-ই ওয়ান-ইলেভেনের সময় খালেদা জিয়ার সঙ্গে করলেন বিশ্বাসঘাতকতা। 

আর সেই বিশ্বাসঘাতকতার ধরণ এমন ছিলো যে, প্রথমে বিএনপি নেতারা বুঝতেই পারেনি। তারা মনে করেছিলেন, খালেদা জিয়া এবং বিএনপির উপকার করতেই বোধ হয় মাঠে নেমেছেন আব্দুল মান্নান ভূঁইয়া।

ওয়ান-ইলেভেন সরকার আসার পর মান্নান ভূঁইয়া আসল চেহারা বেরিয়ে আসে। তখন তিনি খালেদা জিয়া বিরোধী হন এবং বিএনপিতে সংস্কারের ডাক দেন। খালেদা জিয়ার নেতৃত্ব, বিশেষ করে তারেক রহমানের নেতৃত্বের বিরোধিতা করে তিনি প্রকাশ্য অবস্থান নেন। 

এদিকে নানা প্রেক্ষাপটে বর্তমানে বিএনপির রাজনীতিতে মির্জা ফখরুলকে বিএনপি এবং খালেদা জিয়ার শুভাকাঙ্ক্ষী হিসেবে বিবেচনা করা হচ্ছে। কিন্তু তিনি গোপনে কী করছেন, তা নিয়ে বিএনপির মধ্যেই উঠেছে নানা প্রশ্ন। বিশেষ করে যেখানে খালেদা জিয়ার পরিবার তার বিদেশ যাওয়ার বিষয়টি দেখছেন, সেখানে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর অযথাই নাক গলান।

এ নিয়ে দলে সমালোচিত হচ্ছেন মির্জা ফখরুল। এসব কারণেই এর আগে যখন খালেদা জিয়ার জামিন হয়েছিল, সেই সময় এ ইস্যুতে খালেদা জিয়ার পরিবারের সদস্যরা মির্জা ফখরুলকে অন্ধকারে রেখেছিলেন। 

শুধু মির্জা ফখরুল ইসলাম নয়, দলের কাউকেই কোনো কিছু জানতে দেওয়া হয়নি। যখন সরকারি সিদ্ধান্ত ঘোষণা হয়, তখন ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ বিএনপির অন্যান্য নেতারা জানতে পেরেছিলেন।

পাশাপাশি কোনো ধরনের আন্দোলনে সায় না দেওয়ার কারণে অনেকেই মির্জা ফখরুলকে সন্দেহ করেন। বর্তমানে খালেদা জিয়া অসুস্থ হওয়ায় তার পরিবার শঙ্কিত। কিন্তু সংবাদ সম্মেলনে সম্প্রতি খালেদা জিয়া সুস্থ আছেন, তিনি এখন আগের চেয়ে অনেক ভালো ইত্যাদি কথা বলে তার বিদেশ যাওয়ার দাবির কৌশলে বিরোধিতা করেন মির্জা ফখরুল। 

আর এ কারণেই বিএনপিতে এখন গুঞ্জন উঠেছে, তাহলে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর কী আব্দুল মান্নান ভূঁইয়ার দেখানো পথেই হাঁটছেন? রাজনৈতিক বিশ্লেষকেরা জোর গলায় তা-ই বলছেন।

– লালমনিরহাট বার্তা নিউজ ডেস্ক –