• মঙ্গলবার   ১৯ অক্টোবর ২০২১ ||

  • কার্তিক ৪ ১৪২৮

  • || ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

সর্বশেষ:
পীরগঞ্জের জেলেপল্লীতে আগুন: ফেসবুকে পোস্ট দেওয়া সেই যুবক গ্রেফতার সারাদেশে আ’লীগের ‘সম্প্রীতি সমাবেশ-শান্তি শোভাযাত্রা’ কর্মসূচি সেবা খাতের আয় দেশে আনার পদ্ধতি আরো সহজ করলো কেন্দ্রীয় ব্যাংক বেশি ফলন, বন্যাসহনীয় আগাম আমন বীনা-১১ চাষে ঝুঁকছেন কৃষক সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম মনিটর করছে পুলিশ, ‍গুজব ছড়ালেই ব্যবস্থা

শান্তি প্রতিষ্ঠায় আশার বাণী শোনালেন কিমের বোন

– লালমনিরহাট বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১  

দক্ষিণ কোরিয়া কোনো উস্কানিমূলক পদক্ষেপ না নিলে পিয়ংইয়ং সরকার শান্তি আলোচনা আবার শুরু করতে রাজি বলে জানিয়েছেন উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উনের প্রভাবশালী বোন কিম ইয়ো-জং।

ইয়ো-জং’র এই বক্তব্য এমন এক সময়ে এলো যখন দক্ষিণ কোরিয়ার সরকার ওই উপদ্বীপে শান্তি প্রতিষ্ঠার লক্ষ্যে কোরীয় যুদ্ধের আনুষ্ঠানিক অবসানের ডাক দিয়েছে।

দক্ষিণ কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট মুন জায়ে ইন সম্প্রতি জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে ভাষণ দেয়ার সময় কোরীয় যুদ্ধের আনুষ্ঠানিক অবসান ঘটানোর আহ্বান জানিয়েছিলেন। হঠাৎ জারি করা এক বিবৃতিতে কিম ইয়ো-জং একে ‘প্রশংসনীয় পরিকল্পনা’ বলে বর্ণনা করেন। 

তিনি বলেন, উত্তর কোরিয়ার ব্যাপারে সিউলের সরকার কঠোর শত্রুতামূলক অবস্থান পরিত্যাগ করলে দুই কোরিয়ার মধ্যে সম্পর্কোন্নয়ন নিয়ে পিয়ংইয়ং সরকারের সাথে আলোচনা হতে পারে।

১৯৫৩ সালে দুই কোরিয়ার মধ্যকার যুদ্ধের পরিসমাপ্তি ঘটেছিল। কিন্তু তা ঘটেছিল একটি যুদ্ধবিরতির মাধ্যমে। দুই দেশের মধ্যে কোনো শান্তিচুক্তি হয়নি। ফলে দুই দেশের মধ্যে যুদ্ধ আনুষ্ঠানিকভাবে শেষ হয়নি।

২০১৯ সালে উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উনের সাথে তৎকালীন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের বৈঠক হয়। কিন্তু ওই বৈঠকটি ফলপ্রসূ হয়নি। তারপর থেকে মূলত দুই কোরিয়ার মধ্যে সম্পর্ক তিক্ত হতে শুরু করে।

পিয়ংইয়ং সরকারের সঙ্গে সম্পর্ক ভালো করতে এরপর বহুবার দক্ষিণের প্রেসিডেন্ট মুন ওই যুদ্ধের অবসানের ডাক দিয়েছেন।

– লালমনিরহাট বার্তা নিউজ ডেস্ক –