• শুক্রবার ১৯ জুলাই ২০২৪ ||

  • শ্রাবণ ৩ ১৪৩১

  • || ১১ মুহররম ১৪৪৬

সর্বশেষ:
সর্বোচ্চ আদালতের রায়ই আইন হিসেবে গণ্য হবে: জনপ্রশাসনমন্ত্রী। ২৫ জুলাই পর্যন্ত এইচএসসির সব পরীক্ষা স্থগিত।

প্রধানমন্ত্রী উদ্যোক্তা হওয়ার সুযোগ সৃষ্টি করেছেন: পলক

– লালমনিরহাট বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ২ অক্টোবর ২০২৩  

 
আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, শৈশব থেকে মা-বাবা কিংবা শিক্ষক সবাই আমাদের অনুপ্রাণিত করেছেন পাবলিক সার্ভিস হোল্ডার বা ডাক্তার কিংবা ইঞ্জিনিয়ার হতে। কিন্তু প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণের মধ্য দিয়ে নতুন প্রজন্মকে চাকরির পেছনে না ছুটে উদ্যোক্তা হওয়ার সুযোগ সৃষ্টি করেছেন।

রোববার চট্টগ্রামের এশিয়ান ইউনিভার্সিটি ফর উইমেনের মাহসা আমিনী ক্যাম্পাসের কনফারেন্স হলে স্টার্টআপ কম্পাস ইউনিভার্সিটি অ্যাকটিভেশন প্রোগ্রামে এসব কথা বলেন তিনি।

আইসিটি প্রতিমন্ত্রী বলেন, একজন উদ্যোক্তা অসংখ্য কর্মসংস্থান সৃষ্টি করে। আর অন্যদিকে একজন চাকরিজীবী সর্বোচ্চ একটা পরিবারের দায়িত্ব নিতে পারে। তাই নতুন প্রজন্মকে ইনোভেটিভ ও স্মার্ট হওয়ার পাশাপাশি উদ্যোক্তা হয়ে সমাজে ভূমিকা রাখতে হবে।

তিনি আরো বলেন, আমরা এক সময় ডাক বিভাগের মাধ্যমে টাকা আদান-প্রদান করতাম। সময় লাগত ২ থেকে ৩ দিন। ২০১০ সাল থেকে একে একে বেশ কয়েকটি মোবাইল ব্যাংকিং উদ্যোগ চালু হয়। এখন আর টাকা লেনদেনে কয়েক সেকেন্ডের বেশি লাগে না। পাশাপাশি এসব উদ্যোগের কারণে হাজারো কর্মসংস্থান সৃষ্টি হয়েছে। এ থেকেই বোঝা যায় যে, একটি মাত্র ইনোভেটিভ এবং ক্রিয়েটিভ সলিউশন কীভাবে বৃহত্তর সমস্যা সমাধানের পাশাপাশি বিশাল কর্মক্ষেত্রে পরিণত হতে পারে।

জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, শিক্ষার্থীদের অনুপ্রণিত করতে আমরা ইনোভেশন, ডিজাইন এবং অন্ট্রাপ্রেনিউরশিপ একাডেমি স্থাপন করছি। স্টার্টআপ কম্পাসকে সফল করতে হলে ফান্ডিং, ট্রেনিং, ইনকিউবেশন ও নেটওয়ার্কিংয়ের ওপর গুরুত্ব দিয়ে কাজ করতে হবে। এরই মধ্যে আমরা বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে ইনকিউবেশন সেন্টার স্থাপনের কাজ শুরু করেছি।

আইসিটি প্রতিমন্ত্রী পলক বলেন, যেকোনো উদ্যোগে সফল হতে যৌথ প্রচেষ্টা ও অর্থায়ন খুবই গুরুত্বপূর্ণ। বিশ্বের বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠিত কোম্পানি যৌথ প্রচেষ্টা ও অর্থায়নের কারণে সফল হয়েছে। স্টার্টআপ বাংলাদেশ কোম্পানির মাধ্যমে এরই মধ্যে শপআপ, চালডাল, পাঠাও, টেন মিনিটস স্কুলের মতো ৩০টি কোম্পানি বিনিয়োগ করেছে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন- এশিয়ান ইউনিভার্সিটি ফর উইমেনের উপাচার্য ড. রুবানা হক, উপ-উপাচার্য ড. ডেভিড টেইলর, ড. মিজানুর রহমান প্রমুখ।

– লালমনিরহাট বার্তা নিউজ ডেস্ক –