ব্রেকিং:
দিনাজপুরে গত ২৪ ঘণ্টায় ১৪ জন ব্যক্তি করোনা ভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়ালো ৩৩৯৩ জনে। বুধবার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন দিনাজপুরের সিভিল সার্জন ডাঃ মোঃ আব্দুল কুদ্দুছ। বরগুনার আলোচিত শাহনেওয়াজ শরীফ ওরফে রিফাত শরীফ হত্যা মামলায় প্রাপ্তবয়স্ক ১০ আসামির মধ্যে ছয়জনকে মৃত্যুদণ্ড দিয়েছে আদালত। এ সময় বাকি চার আসামিকে খালাস দেয়া হয়েছে।
  • বুধবার   ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০ ||

  • আশ্বিন ১৫ ১৪২৭

  • || ১২ সফর ১৪৪২

সর্বশেষ:
করোনা মোকাবিলায় জাতিসংঘে প্রধানমন্ত্রীর ৬ দফা প্রস্তাব প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা ম্যাজিকের মতো কাজ করছে-পরিকল্পনামন্ত্রী প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিন উপলক্ষে বেরোবি ছাত্রলীগের বৃক্ষরোপণ ‘বাংলাদেশে পানি জীবন-মরণের বিষয়’ মুজিববর্ষের উপহার: ৯ লাখ পরিবারকে ঘর দেবে সরকার
১৫৭

পীরগঞ্জে দুই তরুণীকে ধর্ষণের ঘটনায় দুই জন গ্রেফতার

– লালমনিরহাট বার্তা নিউজ ডেস্ক –

প্রকাশিত: ১৯ আগস্ট ২০২০  

ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জে জুসের সাথে ঘুমের ওষুধ খাইয়ে দুই তরুণীকে সংঘবদ্ধ ধর্ষণের ঘটনায় দুই জনকে গ্রেফাতার করা হয়েছে। মঙ্গলবার রাতে তাদের আটক করে পীরগঞ্জ থানা পুলিশ।

মামলা সূত্রে জানা যায়, পূর্ব পরিচয়ের সূত্র ধরে সোমবার বিকেলে পীরগঞ্জ উপজেলার আটোরিকাশাচালক নয়নের(২১) সাথে দেখা করতে আসে রানীশংকৈল উপজেলার ভোলাপাড়া গ্রামের দুই তরুণী। সেখানে নয়ন তার বন্ধু ফরিদ, হিরণ ও সেলিমের সাথে ওই দুই তরুণীর পরিচয় করিয়ে দেন। এরপর এক তরুণী তার মোবাইল ফোনের ব্যাটারী কিনতে চাইলে নয়ন জানায়, লোহাগাড়া বাজারে তার পরিচিত লোকের দোকান রয়েছে এবং সেখানে কম দামে ব্যাটারী কিনে দিবে। এমন কথা বলে নয়ন তার বন্ধুদের সহায়তায় কৌশলে তাদেরকে উপজেলার লোহাগাড়া বাজারে নিয়ে যায়। পরে তিন বন্ধু তরুণীদের আবারো পীরগঞ্জ শহরে নিয়ে আসে।

আরো জানা যায়, শহরের পূর্ব চৌরাস্তার রনি টেলিকমে মোবাইলের ব্যাটারী কিনতে তাদের সন্ধ্যা হয়ে যায়। এক পর্যায়ে গাড়িতে তরুণীদের জুসের সাথে ঘুমের ওষুধ খাইয়ে ভোমরাদহ ইউনিয়নের চিলাপাড়া গ্রামে নিয়ে যাওয়া হয়। এরপর নয়ন, সবুজ, হিরণ, সেলিম ও ফরিদ মিলে তাদের ধর্ষণ করে। পরে তরুণীদের সবুজের এক আত্মীয়ের বাড়িতে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানেও তাদেরকে দফায় দফায় ধর্ষণ করে তারা। পরে রাত তিনটার দিকে পাশ্ববর্তী রেল লাইনে নিয়ে যাওয়া হয় তরুণীদের। সেখানে টর্চের আলো দেখে ধর্ষকরা তাদের ফেলে রেখে পালিয়ে যায়। 

পীরগঞ্জ থানার ওসি (তদন্ত) খায়রুল আনাম ডন জানান, খবর পাওয়ার সাথে সাথেই পুলিশ ধর্ষকদের গ্রেপ্তার অভিযান শুরু করে। দুই ধর্ষককে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। পাঁচ জনের বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। ভিকটিমদের ডাক্তারি পরীক্ষার ব্যবস্থা করা হয়েছে। বাকি আসামিদের গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত আছে।

– লালমনিরহাট বার্তা নিউজ ডেস্ক –
নগর জুড়ে বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর